বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ৫ বৈশাখ ১৪৩১ , ৯ শাওয়াল ১৪৪৫

দেশ

ধর্মনিরপেক্ষতা মানে ধর্মহীনতা নয় : ধর্মপ্রতিমন্ত্রী

আব্দুর রহমান, সাতক্ষীরা ২২ ডিসেম্বর, ২০২১, ২০:৩৭:০৩

328
  • ছবি: নিউজজি

সাতক্ষীরা: ধর্মনিরপেক্ষতা মানে ধর্মহীনতা নয়, ধর্মনিরপেক্ষতার অর্থ হচ্ছে প্রতিটি ধর্মীয় সম্প্রদায়ের অনুসারীরা স্বাধীনভাবে নির্বিঘ্নে নিরাপদে এদেশে ধর্ম পালন করতে পারবে। প্রতিটি ধর্মের প্রতি রাষ্ট্র ও সরকার প্রয়োজনীয় সহযোগিতা প্রদান করবে।

বুধবার (২২ ডিসেম্বর) সকালে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয় পরিচালিত ‘ধর্মীয় সম্প্রীতি ও সচেতনতা বৃদ্ধিকরণ’প্রকল্পের আওতায় ধর্মীয় সম্প্রীতি ও সচেতনতামূলক আন্ত:ধর্মীয় সংলাপে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় ধর্মপ্রতিমন্ত্রী মো. ফরিদুল হক খান এসব কথা বলেন।

ধর্মপ্রতিমন্ত্রী বলেন, দেশের সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির ওপর আঘাত করা মানে দেশের স্বাধীনতার ওপর আঘাত করা, জাতির পিতার স্বপ্নের ওপর আঘাত করা।

তিনি বলেন, বাংলাদেশের মানুষ ধর্মপ্রাণ। ধর্মের কথা শুনলে মানুষের অন্তর নরম হয়ে যায়। ওয়াজ মাহফিলে পবিত্র কোরআন ও হাদিসের আলোকে আলোচনা করতে হবে। এখানে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে কোনো দলের পক্ষে প্রচারণা কিংবা হিংসাত্মক বক্তব্য রাখা যাবে না। এরূপ করলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

তিনি বলেন, গুজব ছড়িয়ে ফেসবুক-ইউটিউবে অসত্য ও বিভ্রান্তিকর তথ্য দিয়ে মানুষের মাঝে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করা হচ্ছে। এ বিষয়ে স্থানীয় প্রশাসন প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয় মসজিদ, মন্দির ও প্যাগোডা ভিত্তিক শিশু ও গণশিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করছে। এর মাধ্যমে ধর্মীয় সম্প্রীতি ও নৈতিকতা তথা অন্য ধর্মের প্রতি শ্রদ্ধা, মানবিকতা ও সহনশীলতার ওপর গুরুত্ব দিয়ে শিক্ষাদান করা হচ্ছে। প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের আলেম সমাজকে অধিকতর গুরুত্ব দিয়েছেন। কওমিয়া মাদ্রার শিক্ষাকে মূলধারায় নিয়ে এসেছে। তাদের মার্স্টাসের উন্নতি করা হয়েছে। ৮০ টি মাদ্রাসায় মাস্টার্স কোর্স চালু করা হয়েছে।

মডেল মসজিদের বিষয়ে বলেন, বর্তমান সরকার ৯ হাজার কোটি টাকা ব্যায়ে দেশের জেলা ও উপজেলা গুলিতে ৫৬০টি মডেল মসজিদ কমপ্লেক্স নির্মাণ কাজ বাস্তবায়ন করেছেন। হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিস্টান ধর্মের মানুষের উপাসনালয়ের জন্য কোটি কোটি টাকা বরাদ্দ দিয়েছেন।

সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হুমায়ূন কবিরের সভাপতিত্বে কর্মশালায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, সাবেক সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা ইঞ্জিনিয়ার শেখ মুজিবুর রহমান, ইসলামী ফাউন্ডেশনের পরিচালক আব্দুল্লাহ আল শাহীন, সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম,  পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান, ইসলামী ফাউন্ডেশনের খুলনা বিভাগীয় কর্মকর্তকর্তা ফজলুর রহমান, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান বাবু, মক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার মশিউর রহমান মশু, জেলা হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি বিশ্বজিৎ সাধু প্রমুখ।

সভায় জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তা, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যানগণ, ইমাম পরিষদের নেতৃবৃন্দ, আলেম ওলামাবৃন্দ, সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দসহ সকল থানার পুলিশের কর্মকর্তারা অংশ নেন।

নিউজজি/হামা/নাসি 

পাঠকের মন্তব্য

লগইন করুন

ইউজার নেম / ইমেইল
পাসওয়ার্ড
নতুন একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করতে এখানে ক্লিক করুন