মঙ্গলবার, ২ মার্চ ২০২১, ১৭ ফাল্গুন ১৪২৭ , ১৮ রজব ১৪৪২

জীবনযাত্রা
  >
ফ্যাশন

ফ্যাশনে মধুবালা থেকে সোনম কাপুর

নিউজজি ডেস্ক ১৬ অক্টোবর , ২০১৯, ১১:২৫:৩৭

  • ফ্যাশনে মধুবালা থেকে সোনম কাপুর

ভালবাসুন অথবা ঘৃণা করুন, করতেই পারেন, তবে একথা সত্য যে, তাদের ইগনোর করতে পারছেন না৷ আপনার যাপিত জীবনে তারা আঠার মতো লেগেই থাকবে। থাকবে মানে আপনি নিজেই রাখবেন। বলিউড তারকাদের ক্ষেত্রে কথাটা কিন্তু ভীষণ ভাবে সত্যি৷ বিশেষ করে অভিনেত্রীদের প্রসঙ্গে৷ কারণ তাঁরাই তো বরাবরই উপমাহাদেশের নারীদের ফ্যাশন আইকন৷ সেই পঞ্চাশের দশক থেকে আজ পর্যন্ত সেই ট্র্যাডিশন সমানে চলেছে৷ তাই এখনও করিনা কাপুর, কঙ্গনা রানাউত, দীপিকা পাড়ুকোনদের রেড কার্পেট থেকে এয়ারপোর্ট ফ্যাশন, সব কিছু নিয়েই চলতে থাকে উৎসাহী চর্চা৷

এমন না যে এই আগ্রহ পঞ্চাশের দশকে কিছু কম ছিলো৷ বরং বলা ভালো প্রতিটা দশকেই বলিউড কোনও না কোনও ফ্যাশন ট্রেন্ড উপহার দিয়েছেন৷ আর সেই ফ্যাশন ট্রেন্ড এখনও মাঝে মাঝেই ঘুরে ফিরে লেটেস্ট ফ্যাশন ট্রেন্ডও হয়৷ সেই কারণেই পঞ্চাশের দশক দাপিয়ে বেড়ানো ওয়াহিদা রহমান, বা বৈজয়ন্তীমালাদের মাঝখান থেকে সিঁথি করে লম্বা বিনুনির স্টাইল স্টেটমেন্ট এখনকার বলিউড ফ্যাশনিস্তা সোনম কাপুরের সাজে খুঁজে পাওয়া যায়৷

এই সময়কার অভিনেত্রী সাধনার বুফো উইথ ব্যাং হেয়ার স্টাইল তো এখন কিংবদন্তী৷ ষাটের দশকের নায়িকারা আবার একটু সাহসী, একটু এক্সপেরিমেন্টাল৷ মেকআপে হেয়ার স্টাইলেও৷ সারা দুনিয়া জুড়ে যখন হলিউড অভিনেত্রী অড্রে হেপবার্নের বুফো হেয়ার স্টাইল নিয়ে হৈ চৈ চলছে, তখন সায়রা বানু, শর্মিলা ঠাকুর, মুমতাজের মতো অভিনেত্রীরাও আপন করে নিয়েছেন এই ইলাবরেট এবং নাটকীয় হেয়ার স্টাইলে৷ তাঁদের কোনও মতেই অড্রে হেপবার্নের থেকে কম সুন্দরী দেখিয়েছে একথা অতি বড় নিন্দুকেও মানবেন না৷

যারা ফ্যাশন সম্পর্কে একটু আধটু খবরাখবর রাখেন, তাঁরা জানেন উইংড আইলাইনারকে সোনাক্ষী সিনহা থেকে দীপিকা পাড়ুকোনের মতো অভিনেত্রীরা কেমন ফ্যাশন স্টেটমেন্ট করে তুলেছেন৷ একটু এই সব নায়িকাদের ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্ট চেক করলেই পাবেন৷ তবে এই ফ্যাশন স্টেটমেন্ট কিন্তু সত্তরের দশকের আমদানি৷ হেমা মালিনী, জিনাত আমন, পরভীন বাবির মতো অভিনেত্রীদের ছবিগুলো দেখলেই বুঝতে পারবেন৷ দুনিয়া জুড়ে হিপি কালচারের প্রভাব এইসব গ্ল্যামারাস নায়িকারা এড়িয়ে যেতে পারেননি৷ তবে সত্তরের দশকের উইংড আইলাইনারের স্টাইলে এখন নাটকীয় মোচড় অনেক কম৷ বরং সোনাক্ষী, দীপিকা, কঙ্গনারা এনেছেন একটা শাটল ক্লাসিক লুক৷ আশির দশকের মাধুরী দীক্ষিত, জুহি চাওলা, শ্রীদেবিদের মেক আপ বা হেয়ার স্টাইল যাই বলুন না কেন, একটু লাউডই বলা যায়৷ বোল্ড আই মেকআপ, চড়া শেডের লিপস্টিকেই বলিউড স্ক্রিন মাতিয়ে দিয়েছেন তাঁরা৷ নব্বইের দশকে আবার গোলাপি লিপস্টিকের বদলে নায়িকারা বেছে নিলেন ব্রাউন বা একটু মেটালিক শেডের লিপস্টিক৷ শুধু তাই নয়, কাজল, ঐশ্বর্য, রাণী মুখোপাধ্যায়, করিশমা কাপুর, রবিনা ট্যান্ডনদের দেখা গেলো ইলাবরেট ইয়ার রিং, হাই ওয়েস্টেড জিনস, প্ল্যাটফরম হিল আপন করে নিতে৷ বলিউডের ফ্যাশন এই সময় থেকেই বেশি করে আমজনতার ফ্যাশন হতে শুরু করে৷ আর সেই ট্রেন্ডটা আরও বেশি করে দেখা দিলো ২০০০ সালের পর থেকে৷

নায়িকারা অনেক বেশি ন্যাচারাল লুকের উপর জোর দিলেন৷ প্রীতি জিন্তা এই ব্যাপারে প্রথম উদ্যোগ নিয়েছিলেন বলা যায়৷ এখন নায়িকাদের ফ্যাশন স্টেটমেন্ট সহজেই তাঁদের অনুরাগীদের ফ্যাশন স্টেটমেন্ট৷ তারকা আর তাঁদের অনুরাগীদের দুরত্ব অনেকটা বোধহয় এইভাবেই দূর হয়েছে৷ তবে তাঁরই মধ্যে ফিরে এসেছে বিহিভী হেয়ার স্টাইল, লাল লিপস্টিক, ফ্লেয়ারড ট্রাউজারের ফ্যাশন স্টেটমেন্টও৷ আমরা যাকে বলি রেট্রো ফ্যাশন স্টেটমেন্ট৷

পাঠকের মন্তব্য

লগইন করুন

ইউজার নেম / ইমেইল
পাসওয়ার্ড
নতুন একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন করতে এখানে ক্লিক করুন
copyright © 2021 newsg24.com | A G-Series Company
Developed by Creativeers